ড়্যাম তুমি বেদনা!! :(

এর আগের কোন একটা ব্লগে লিখেছিলাম আমি চারদিন ধরে টাকা পয়সা ছাড়া দিন যাপন করছি। কিন্তু যেটা লেখা হয়নি তা হলো সে চার দিন শেষমেষ বিশদিনে এসে ঠেকেছিল!! আমি আসলে যে এত অলস সেটা আমার নিজেরও এভাবে ধারণা করা হয়নি কখনো। সত্যিই সময় মানুষকে কত কিছু শেখায়!

ব্যাপারটা জেনেছিলাম কালকেই। সাকিব ভাইয়ের অত্যন্ত বিরক্তিকর ল্যাবটা আজ হয়নি। তবে আটটায় কামরুল স্যারের ক্লাসটা ঠিকই ছিল। সোজা বাংলায় বলতে হলে আমাকে আটটাতেই বিছানা থেকে উঠতে হবে। কিন্তু সেটা কিভাবে পসিবল। এই সেমিস্টার এ বুধবার এর সকাল আটটার এই ক্লাসটা একদিনও করিনি। আল্লায় জানে এটেন্ডেন্স নিয়ে স্যার এখন আমাকে ফ্যাকড়ায় না ফেললেই হয়। আজকেও চোখ বুজে (কারণ তখন আমি গভীর ঘুমে) বাং মারলাম। ঘুম এর সাথে নো কম্প্রোমাইজ। ল্যাব যেহেতু ছিলনা কাজেই আরামসে ঘুমালেও কোন কিছু ওলট পালট হবার সুযোগ নেই। সেই হিসেবে সাড়ে দশটা পর্যন্ত নাক ডেকে ঘুমানো যায়। কিন্তু উঠে পড়লাম দশটা ছুঁই ছূঁই করার আগেই । কারণ ব্রেকফাস্ট। দশটাতেই ওটা দেয়া বন্ধ হয়ে যায়। নাও যদি হয় ওটাকে আর ব্রেকফাস্ট বলে চেনা যায়না। ব্রেড আছে তো বাটার নেই, বাটার আছে তো জেলী নেই। কিংবা সবই আছে তো ক্যাফেটেরিয়ার মামা গুলা নেই!! দশটায় অবশ্য না উঠলেই হত। আমার জন্য ব্রেকফাস্ট মিস দেয়া আর রাতের বেলা দাঁত ব্রাশ করতে ভুলে যাওয়া সমানগুরুত্ব বহন করে। কিন্তু ইদানিং ভাল ছেলে হবার চেষ্টা করছি। রাত দুটা আড়াইটার দিকেই ঘুমানোর চেষ্টা করি। উঠতে চেষ্টা করি আটটার দিকেই। নিয়ম করে অসুধও খাওয়া যায় কীনা সেটাও মাথাতে আছে। এবং এই চেষ্টাটা যেন সরকারের দীর্ঘমেয়াদী কোন পরিকল্পনার মত অকালেই আলু পটল না তোলে সেই চেষ্টাও করছি।

আজ উত্তরা যাবো। উদ্দেশ্য RAM কেনা। মাথার মধ্যে উবুন্টুর ভূত বসে আছে পা ঝুলিয়ে। তাকে মাথা থেকে নামানোর জন্য আমার ২৫৬ এম বি র বেশি র‌্যাম লাগে। আমার সেটা নাই। কাজেই ram বাড়ানোই এখন আমার জীবনের ধ্যান জ্ঞান হয়ে আছে। সেখানেও বিপত্তি। এখন ডিডিআর টু ram ১৫০০ টাকাতেই এক গিগা পাওয়া যায়। বাজারের শাকসব্জি, আর তেল এর তুলনায় বেশ সস্তাই বলা যায়। আমিও মহা খুশি। এত কম দামে এত বড় জায়গা। বসুন্ধরার বিশাল একটা জায়গা কিনেও এত আনন্দ লাগতোনা। কিন্তু আমার কপালে সুখ, ক্যাম্নে কি? আমার ram এর ডিসেকশন করার পর দেখা গেল সেটা ডিডিআর ওয়ান। যেটার দাম ডিডিআর টু র পুরা দ্বিগুন। শুনে আমার মাথায় আগুন। কিন্তু ভুতটা যে গেলনা। উত্তরা যাচ্ছি। দ্বিগুন দামে অর্ধেক জিনিস কেনার ধান্দায়। সুম্মা আমিন।

বিকেল এ জাহিদ স্যারের ক্লাস আছে। যাবো নাকি বাং মারবো বুঝতেসিনা। দেখা যাক।

Advertisements
This entry was posted in দিন লিপি. Bookmark the permalink.

2 Responses to ড়্যাম তুমি বেদনা!! :(

  1. রাশেদ বলেছেন:

    আমার মনে হয় DDR II র‌্যাম। ১ গিগা। আরো ১ গিগা লাগাবো নাকি ভাবতেছি! B-)

  2. Zihad বলেছেন:

    মজাক লন, না? 😦

মন্তব্য করুন

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / পরিবর্তন )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / পরিবর্তন )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / পরিবর্তন )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / পরিবর্তন )

Connecting to %s